মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৬:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুমিল্লা চান্দিনা মহিচাইল ইউনিয়নের এর বিভিন্ন গ্রামে অভিযান পরিচালনা করে থেকে ৬ মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে চান্দিনা থানার পুলিশ, দেবপুর ফাঁড়ি পুলিশের অভিযানে ডাকাতির সরঞ্জাম সহ ৩ ডাকাত আটক। পলাতক অনেকে । পলাতক আসামীদের নাম নিচে দেওয়া আছে । সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির নষ্ট করতে দেয়া হবেনা, পৌর কৃষক লীগের সম্মেলন আব্দুর রহমান (বদি) নাছির উদ্দীন রাজ, টেকনাফ। কুমিল্লার বরুড়ায় উত্তর খোশবাস ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের কাউন্সিল ভোটে এগিয়ে আছেন কুমিল্লার চান্দিনায় কাভার্ডভ্যানের চাপায় তরুণ নিহত ফেনীতে মন্দিরে নাশকতাকারীর মূলহোতা আটক কুমিল্লার চান্দিনায় বাতিজাকে ফাঁসানোর জন্য নিজ সন্তান সালমা আক্তার কে কুপিয়ে হত্যা করায় বাবা সহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ মোঃ আশিকুল রহমান রাসেল কুমিল্লার চান্দিনা উপনির্বাচন উপলক্ষে আওয়ামী লীগ দলীয় একক প্রার্থী হিসাবে মুনতাকিম আশরাফ টিটু মনোনয়ন পেপার সংগ্রহ টিকটক ভিডিও ও প্রেমে বাধা দেয়ায় স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা!! কুমিল্লার চান্দিনায় ৭ উপনির্বাচন উপলক্ষে শ্রীমন্তপুর উচ্চ বিদ্যালয় বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে
ব্রেকিং নিউজ :

কুমিল্লার দাউদকান্দিতে ৮টি ড্রেজার মেশিন অপসারণ করলেন সার্কেল এএসপি জুয়েল রানা

কুমিল্লার দাউদকান্দিতে ৮টি ড্রেজার মেশিন অপসারণ করলেন সার্কেল এএসপি জুয়েল রানা

মোঃ আশিকুর রহমান রাসেল, কুমিল্লা

কুমিল্লার দাউদকান্দিতে অবৈধভাবে কৃষি জমি থেকে মাটি উত্তোলনের সময় ৮টি ড্রেজার মেশিন অপসারণ করেছে দাউদকান্দি-চান্দিনা সার্কেল এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ জুয়েল রানা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন এসআই ফারুক আহমেদ ও গৌরিপুর তদন্ত কেন্দ্রে পুলিশের একটি টিম। ড্রেজারগুলো অপসারণে এলাকাবাসী পুলিশকে সহযোগিতা করে।

শনিবার বিকেলে উপজেলার মোহাম্মাদপুর ইউনিয়নের মোহাম্মাদপুর বাজার সংলগ্ন বিল এলাকা থেকে ০৮টি মেশিন অপসারণে করা হয়।
এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে ড্রেজার মেশিনের মালিক ও শ্রমিকরা দৌড়ে পালিয়ে যায়।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মোহাম্মাদপু গ্রামের কামাল ও সেলিম আমে দুই ব্যক্তি ওই বিলে প্রভাব খাটিয়ে অবৈধ ড্রেজারের মাধ্যমে দীর্ঘদিন ধরে মাটি উত্তোলন করে আসছিল।

স্থানীয় এক কৃষক জানায়, অনেকদিন থেকেই তারা ড্রেজার বসিয়ে মাটি উত্তোলন করতে থাকে। আমরা বাধা দিলেও সে গ্রামের প্রভাবশালী হওয়ায় কিছুই করতে পারি নাই। সারাবছর তারা মাটি কাটে। মাটি কেটে অনেক গভীর করে ফেলছে। আমাদের জমি তাদের পাশেই যে কোন সময় আমাদের জমি ধসে যাবে। জমি বিক্রি করতে গেলেও কেউ নিতে চায়না বলে তোমার জমির পাশে ড্রেজার চলে যে কোন মূহুর্তে জমি ধ্বসে যাবে।

ভুক্তভোগী এক মহিলা জানান, এই ড্রেজার মেশিনের ফলে তার ফসলী জমিও দেবে গেছে। সে বাধা দিতে গেলে তাকে হুমকী দিয়ে কামাল বলে আমি মাটি কাটবোই যা পারিস কর।

অভিযান পরিচালনা করা কালে দাউদকান্দি সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ জুয়েল রানা বলেন, এলাকাবাসীর অভিযোগের ভিত্তিতেই এই অভিযান চালানো হয় এবং তাদের সহযোগিতায়ই পুলিশ এই ড্রেজার অপসারণ করে। এজন্য আমরা এলাকবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞ। ড্রেজার মেশিন পরিবেশ ও ফসলি জমির জন্য অত্যান্ত ক্ষতিকর। ড্রেজার দিয়ে জমি খনন করলে সেখানে আর কখনোই ফসল ফলানো যাবে না। পাশাপাশি এই মেশিন দিয়ে এত গভীর করে মাটি কাটা হয় যে, পাশবর্তী জমি যেকোন মূহুর্তে ধ্বসে পড়তে পারে। ড্রেজার ব্যবসায়ীরা ব্যক্তিগত লাভের জন্য ফসলী জমির চিরস্থায়ী ক্ষতি করছে। কুমিল্লা জেলার পুলিশ সুপার জনাব ফারুক আহমেদ পিপিএম(বার) স্যারের নির্দেশনায় দাউদকান্দি ও চান্দিনা থানা এলাকায় নিয়মিত ড্রেজার বিরোধী অভিযান চালাচ্ছি। আমাদের এই ড্রেজার বিরোধী এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।

পুলিশের এই কার্যক্রমকে এলাকার জনগন সাধুবাদ ও ধন্যবাদ জানিয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Our Like Page

প্রযুক্তি সহায়তায় Freelancer Zone